Sun, July 21, 2024

ই-পেপার দেখুন

পুজোর আগেই চালু হতে চলেছে আদি গঙ্গার উপর নির্মিত সূর্যপুর সেতুর

Bipasha Chakraborty

Published: 08 July, 2024, 08:55 PM
পুজোর আগেই চালু হতে চলেছে আদি গঙ্গার উপর নির্মিত সূর্যপুর সেতুর

 

উজ্জ্বল বন্দ্যোপাধ্যায়,দ:২৪ পরগনা : পুজোর আগেই চালু হতে চলেছে আদি গঙ্গার উপর সূর্যপুর সেতুর।দেখতে দেখতে প্রায় দুই বছর হতে চললো অথচ এখনো শেষ হয়নি আদি গঙ্গার উপর বারুইপুরের কুলপি রোডের গুরুত্বপূর্ণ সূর্যপুর সেতুর কাজ। ফলে সমস্যায় সাধারণ মানুষ থেকে গাড়ি চালককেরা। অভিযোগ,কোনও দিন কাজ বন্ধ থাকে তো কোনও দিন কাজ চলছে অত্যন্ত শ্লোগতিতে। কবে এই কাজ শেষ হবে তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন ক্ষুব্ধ এলাকার বাসিন্দারা। কাজ ঠিক মতো হচ্ছে কি না, প্রশাসনের সেদিকে কোনও নজরদারি নেই বলে ও অভিযোগ।আর এর ফলে যাতায়াতে রোজই সমস্যা হচ্ছে সাধারণ মানুষজনের।

যদিও বারুইপুর পূর্তদফতরের এক অতিরিক্ত বাস্তুকার বলেন, নির্মাণ সামগ্রী আসার ব্যাপার আছে। এছাড়া বিয়ারিং বানাতে সময় লাগে। এরজন্য নকশা সবে পাশ হয়েছে। বিয়ারিং-এর উপর স্টিল গার্ডার বসবে। সেটাও তৈরি করা হয়েছে। আগামী ২ মাসের মধ্যে কাজ শেষ হয়ে যাবে আশা করা হচ্ছে।এই সেতুর অবস্থা খারাপ হয়ে যাওয়ায় ২০২২ সালের জুলাই মাসের দিকে এখানে থাকা কংক্রিটের সেতুটি সম্পূর্ণ ভাঙা হয়।

পূর্তদফতর নতুন করে সেতু নির্মাণের কাজ শুরু করে। এই সেতুর উপর দিয়েই জয়নগর, কুলতলি,মৈপীঠ,মথুরাপুর, মন্দিরবাজার,রায়দীঘি সহ দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিভিন্ন প্রান্তে যাওয়া যায়। বারুইপুরেও আসতে গেলে এর উপর দিয়েই আসতে হয়।এই সেতু ভাঙার কাজ শুরু হওয়ার পর বিকল্প রাস্তা হিসেবে এর ঠিক পিছনে পুরনো সেতু দিয়ে যাতায়াত চালু করা হয়।যেখান দিয়ে বর্তমানে প্রতিদিন কয়েক হাজার গাড়ি চলাচল করে।

স্থানীয়  বাসিন্দারা বলেন, সূর্যপুর খালের উপর বিম তোলার পর কাজ সেইভাবে এগোচ্ছে না। এইভাবে চললে আর একটা বছর পার হয়ে যাবে। মানুষকে ঘুরে অন্য সেতু দিয়ে যেতে হচ্ছে। ফলে সকালে রোজই যানজট বড় আকার নিচ্ছে।

ট্রাফিক পুলিশকে পরিস্থিতি সামলাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। তাই দ্রুত এই সেতু চালুর দাবি তুললো স্থানীয় মানুষজন।আর এব্যাপারে বারুইপুর মহকুমা শাসক চিত্রদীপ সেন বলেন, মাঝখানে কাজ একটু ধীরগতিতে হয়েছিলো বটে।তবে এখন কাজ পুরোদমে হচ্ছে। পুজোর আগেই চালু হয়ে যাবে আদি গঙ্গার উপর নির্মিত সূর্যপুর সেতুর।আর তাঁরই অপেক্ষায় সাধারণ মানুষ।

Leave a comment