Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!
Breaking News
Home / আন্তর্জাতিক / অভাব ও যুদ্ধের মাঝেও স্বাধীন জীবনের লড়াইয়ে গাজার নারীরা

অভাব ও যুদ্ধের মাঝেও স্বাধীন জীবনের লড়াইয়ে গাজার নারীরা

পুবের কলম ওয়েব  ডেস্ক:

গাজা উপত্যকায় দারিদ্রের কষাঘাত ও বঞ্চনার মধ্য দিয়েও ফিলিস্তিনি নারীরা একটি স্বাভাবিক জীবনের জন্য লড়াই করে যাচ্ছেন। ঠিক পৃথিবীর অন্যান্য দেশের নারীদের মতোই তারা স্বাধীন ও স্বতন্ত্র জীবন গড়তে চাচ্ছেন।

ডিজিটাল বিপণনে কাজ করেন নাদা রাদওয়ান। কিন্তু উপত্যকাটিতে যখন ৫০ শতাংশের কাছাকাছি বেকারত্ব, তখন তার কাজের গতিও কমে গেছে। এবার তিনি নিজের একটি শখের কাজের ওপর প্রযুক্তি দক্ষতা ঢেলে দিতে চাইছেন। সেটি হল- রান্না-বান্নার কাজ।-খবর রয়টার্সের।

২৭ বছর বয়সী রাদওয়ান বলেন, এখানে একটি চাকরি খুঁজে পাওয়া খুবই কঠিন। কাজেই আমি পছন্দ করি, এমন কিছু একটা করার কথা ভাবছি। যাতে একই সঙ্গে আমার উপার্জনও হবে।

এর পর থেকে সামাজিকমাধ্যমে তিনি রান্না শেখার টিউটোরিয়াল পোস্ট করতে থাকেন, যার নাম দিয়েছেন নাদা কিচেন।

রাদওয়ান বলেন, তিনি ইউটিউব প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে অর্থ উপার্জন করছেন। এমনকি সৌদি আরবের বেশ কয়েকটি কোম্পানি তার ভিডিও কিনে নিয়েছে।

তিনি বলেন, একটি চাকরি খোঁজার মাধ্যমে গাজার ওপর এক দশকের শারীরিক নিষেধাজ্ঞাকে পরাজিত করতে চাচ্ছি আমি। এ জন্য কিছুটা মেধা, একটি ক্যামেরা ও ইন্টারনেট সংযোগ দরকার।

উপত্যকাটিতে প্রায় ২০ লাখ লোকের বসবাস। ১৯৪৮ সালে অবৈধ ইহুদি রাষ্ট্র ইসরাইলের প্রতিষ্ঠা লগ্নে এসব লোককে তাদের বাপ-দাদার ভিটেমাটি থেকে তাড়িয়ে দেওয়া হয়েছিল।

ছোট্ট গাজা উপত্যকাটির সঙ্গে ইসরাইল ছাড়াও মিশরেরও সীমান্ত রয়েছে।

প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের আতঙ্কের কথা বলে গাজার স্থল ও সমুদ্রসীমার কঠোর নিয়ন্ত্রণ করে ইসরাইল। এমনকি গাজা সীমান্ত দিয়ে লোকজনের চলাচলেও কঠোর বিধিনিষেধ দিয়ে রেখেছে মিশর।

এতে অর্থনৈতিকভাবে বিপর্যয়ের মধ্যে রয়েছে উপত্যকাটি। বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক পাস করার পরও একটি চাকরির জন্য হন্যে হয়ে ঘুরে বেড়াতে হচ্ছে এখানকার নারীদের।

Check Also

ক্রাইস্টচার্চ প্রথম নয়, শ্বেতাঙ্গ-সন্ত্রাসীদের নৃশংস কাণ্ডগুলি জেনে নিন

১৫ মার্চ, শুক্রবার নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চের দুটি মসজিদে পবিত্র জুম্মার নামাজের সময়ে সন্ত্রাসী হামলার মাধ্যমে নতুন …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

WhatsApp us