মুখ্যমন্ত্রীর ঠাকুরনগর সফরকে কেন্দ্র করে ঠাকুরবাড়িতে চলছে জোরালো প্রস্তুতি

0
14

এম এ হাকিম, বনগাঁ : আগামী ১৫ নভেম্বর উত্তর ২৪ পরগণা জেলার ঠাকুরনগরে যাবেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানে এক বিশাল জনসমাবেশে তিনি ভাষণ দেবেন। সেজন্য ঠাকুর নগরের ‘মতুয়া ধাম’ ঠাকুরবাড়িতে এখন চলছে জোরালো প্রস্তুতি। মতুয়া মহাসঙ্ঘের মুখ্য উপদেষ্টা বীনাপাণি ঠাকুরের (বড়মা) জন্মশতবর্ষ উদযাপন উপলক্ষ্যে তাঁকে শুভেচ্ছা জানাবেন মুখ্যমন্ত্রী। ‘বড়মা’ একশ’ বছরে পদার্পণ করেছেন।

সারাভারত মতুয়া মহাসঙ্ঘের সঙ্ঘাধিপতি ও বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রের সংসদ সদস্যা মমতা ঠাকুর বৃহস্পতিবার ‘পুবের কলম’ প্রতিবেদককে বলেন, ‘ ‘বড়মা’ ও মুখ্যমন্ত্রীর মধ্যে ‘মা ও মেয়ে’র সম্পর্ক। মতুয়াদের রীতি ও ঐতিহ্য অনুযায়ী মুখ্যমন্ত্রীকে ঠাকুরবাড়িতে স্বাগত জানানোর জন্য প্রস্তুতি চলছে। অগণিত মতুয়া ভক্তবৃন্দ তাঁকে স্বাগত জানানোর জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষায় রয়েছেন।’ এরইমধ্যে ঠাকুরনগর ষ্টেশন সংলগ্ন ঠাকুরবাড়ির সামনের মাঠে প্যান্ডেল বাঁধার কাজ শুরু হয়েছে। স্থানীয় হাইস্কুল মাঠে হেলিপ্যাড নির্মাণের কাজও চলছে জোরকদমে।

সারা ভারত মতুয়া মহাসঙ্ঘের সভাপতি ড. নন্দদুলাল মোহন্ত জানান, ‘মুখ্যমন্ত্রীর ওই সমাবেশে দেড় লক্ষেরও বেশি মানুষ উপস্থিত থাকবেন বলে আমরা আশা করছি। গোটা ঠাকুরনগর ও যশোররোড এলাকায় মুখ্যমন্ত্রীকে স্বাগত জানানোর জন্য তাঁর ছবি সম্বলিত প্রায় ৭৫ টি তোরণ করা হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রীর ভাষণ যাতে মানুষ ভালোভাবে শুনতে পারেন সেজন্য প্রায় দশটা জায়ান্ট স্ক্রিনের ব্যবস্থা থাকবে।’

মতুয়া মহাসঙ্ঘের বনগাঁ মহকুমার সম্পাদক, মনোজ টিকাদার বলেন, ওইদিন সাধারণ মানুষের পাশাপাশি অসংখ্য মতুয়া ভক্ত ঠাকুরবাড়িতে মুখ্যমন্ত্রীর সমাবেশে উপস্থিত থাকবেন। তাঁর শুভাগমনের মধ্যদিয়ে গোটা মতুয়া সম্প্রদায়ের মানুষজন আশার আলো দেখছেন।

Leave a Reply

avatar
  Subscribe  
Notify of